যশোরে দুই বাংলার কবি সাহিত্যিকদের মিলন মেলা

ব্যুরো রিপোর্ট: যশোর সাহিত্য উৎসবে দুই বাংলার (পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশ) কবি সাহিত্যিকদের মিলন মেলা বসেছিল। শুক্রবার যশোর বাঁচতে শেখা মিলনায়তনে এই উৎসবের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক কবি হাবীবুল্লাহ সিরাজী বলেন, বাংলা ভাষার প্রতি আস্থা রাখুন। ভাষাকে সমৃদ্ধ করতে সকলে মিলে কাজ করুন। তাহলে বাংলা ভাষা আরও সমৃদ্ধ হবে এবং আগামী দিনে তা নতুন রূপে আবির্ভূত হবে। বিশ্বময় বাংলা ভাষার ঝান্ডা উত্তোলিত হবে এবং বাংলা ভাষা নিজের জন্যেই পৃথক জায়গা করে নেবে।
যুগ সাগ্নিক পত্রিকার আয়োজনে যশোর সাহিত্য উৎসব ও ‘যুগসাগ্নিক’ ঈদ সংখ্যা প্রকাশ অনুষ্ঠানে কবি মুহম্মদ নুরুল হুদার সভাপতিত্বে উদ্বোধক ছিলেন কথাসাহিত্যিক আনোয়ারা সৈয়দ হক। বিশেষ অতিথি ছিলেন, কবি ও প্রাবন্ধিক হোসেন উদ্দিন হোসেন ও নজরুল ইনস্টিটিউটের পরিচালক কবি ও লেখক মানিক মোহাম্মদ রাজ্জাক। বক্তব্য দেন, যুগ সাগ্নিক পত্রিকার সম্পাদক প্রদীপ গুপ্ত, উপদেষ্টা কবি ইন্দ্রনীল সেনগুপ্ত, কবি মাজেদ নেওয়াজ, কবি দারা মাহমুদ, কবি আব্দুর রব, কবি পাবলো শাহী, কবি খসরু পারভেজ, কবি নান্নু মাহবুব, কবি ফখরে আলম, পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক কবি খায়রুল কবীর চঞ্চল প্রমুখ। অনুষ্ঠানে কবি অজিতেশ নাগ ও কবি ইকবাল রাশেদীনকে যুগ সাগ্নিক যশোর সাহিত্য সম্মাননা প্রদান করা হয়। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে বিকেলে কবিতা পাঠ করেন দুই বাংলার কবিরা।
এর আগে শুক্রবার সকাল থেকেই যশোরের বাঁচতে শেখা মিলনায়তন বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গে কবি-সাহিত্যিকদের পদচারণায় মুখর হয়ে ওঠে। বৃষ্টি¯œাত মেঘলা দিনের এক অন্যরকম পরিবেশে কবি-সাহিত্যিকরা তাদের নিজেদের মধ্যে ভাবের আদান-প্রদান করেন। চা-চক্র ও আড্ডায় মেতে ওঠেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পর কবিতা পাঠ পর্বে গোটা হলঘরকে কবিতায় মন্ত্রমুগ্ধ করে রাখেন কবি হাবীবুল্লাহ সিরাজী, কবি মুহম্মদ নুরুল হুদাসহ দুই বাংলার কবিরা। ঝিরঝির বৃষ্টি, মৃদুমন্দ শীতল বাতাস আর মেঘলা সন্ধ্যায় বিমূর্ত কবিতাগুলো কবিদের কণ্ঠে যেন মূর্ত হয়ে ওঠে। কবিতার জিয়ন কাঠির ছোঁয়ায় অন্যরকম আবেশে অভিভূত হন কবি, শ্রোতা ও সুধীবৃন্দ।