প্রধানমন্ত্রী বরাবর ননএমপিও অনার্স শিক্ষকদের স্মারকলিপি

ব্যুরো রিপোর্ট: করোনা সংকটে সরকারি তহবিল হতে আর্থিক সাহায্য ও এমপিওভুক্তির দাবিতে প্রধানমন্ত্রী বরাবার স্মারকলিপি প্রদান করেছে বাংলাদেশ বেসরকারি কলেজ অনার্স-মাস্টার্স শিক্ষক ফোরাম যশোর জেলা শাখা। বুধবার যশোর জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে এ স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।

সংগঠনে আহŸায়ক তরিকুল ইসলাম ও সদস্য সচিব জসীম উদ্দীন স্বাক্ষরিত স্মারকলিপিতে বলা হয়েছে, জাতীয় বিশ্ববিদ্যায়ের অধিভুক্ত এমপিওভুক্ত বেসরকারি কলেজের অনার্স কোর্সে পাঠদানরত শতভাগ বৈধভাবে নিয়োগপ্রাপ্ত (ননএমপিও) শিক্ষকরা দীর্ঘ ২৮ বছর ধরে এমপিওভুক্ত হয়নি। অথচ এই শিক্ষকরাই বাংলাদেশে উচ্চশিক্ষা বিস্তারে এবং সরকারের জাতীয় শিক্ষানীতি-২০১০ এর অধ্যায় ০৮, কৌশল ০৬ এর বাস্তবায়নে অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে। দীর্ঘদিন ধরে যৌক্তিক দাবির পক্ষে আন্দোলন করলেও আশানুরুপ কোন ফল হয়নি। ফলে, একদিকে যেমন কোন ধরণের সরকারি অনুদান পায় না; অন্যদিকে তেমনি সংশ্লিষ্ট কলেজ থেকে যে যৎসামান্য বেতন পায় তা অধিকাংশ কলেজগুলো থেকে নিয়মিত দিচ্ছে না। এজন্য সংসার চালানোর তাগিদে বেশির ভাগ শিক্ষককেরই খন্ডকালীন টিউশনী বা অন্যান্য কাজের সাথে যুক্ত থাকতে হয়। কিন্তু বর্তমানে কোভিড-১৯ তথা করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে জাতীয় স্বাস্থ্যবিধি মেনে সারাদেশের মত যশোর জেলাতেও এসকল অনার্স শিক্ষককে নিজ নিজ গৃহে অবস্থান করতে হচ্ছে। আবার সম্মান রক্ষার্থে তারা কারোর কাছে হাত পাততে পারছে। এতে শিক্ষকরা এক নিদারুণ মানবেতর জীবন যাপন করতে বাধ্য হচ্ছে। এই অর্থনৈতিক সংকটকালীণ অসহায় শিক্ষকদের মানবেতর জীবনের কথা সুবিবেচনা করে সরকারি তহবিল হতে আর্থিকভাবে সাহায্যদান ও দ্রæত এমপিও প্রদানের দাবি জানানো হয়েছে।

যশোর জেলার ২৩টি বেসরকারি কলেজের অনার্স মাস্টার্স কোর্সে কর্মরত শিক্ষকের সংখ্যা প্রায় সাড়ে তিনশ’ জন।